সদ্য সংবাদ

পুরাতন সংবাদ: May 2019

কমলগঞ্জে বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্প কাজের শুভ উদ্বোধন

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

Copy of 1-4
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার রহিমপুর ও মুন্সীবাজার ইউনিয়নের দিনব্যাপী ৮টি উন্নয়ন প্রকল্প কাজের শুভ উদ্বোধন করলেন সরকারি প্রতিশ্র“তি সম্পর্কিত কমিটির সভাপতি, সাবেক চিফ হুইপ বীর মুক্তিযোদ্ধা উপাধ্য ড. মো: আব্দুস শহীদ এমপি। এসময় তিনি উন্নয়নের ধারা আব্যাহত রাখতে নৌকা মার্কায় ভোট দেয়ার আহবান জানান। বুধবার (৩১ অক্টোবর) সকাল ১১টায় দিনব্যাপী উন্নয়ন কাজের অংশ হিসাবে চাহিদা ভিত্তিক নতুন জাতীয়করণকৃত সরকারি প্রাথমিক বিদালয়ের উন্নয়ন (প্রথম পর্যায়) প্রকল্পের আওতায় রহিমপুর ইউনিয়নের সিদ্ধেশ্বরপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবন নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন ও মিড-ডে-মিল ও টিফিন বক্স বিতরণ করেন।

Copy of 2-3

স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের (এলজিইডি) কমলগঞ্জ এর বাস্তবায়নে ৮৮ ল ৭৩ হাজার ১৮৫ টাকা ব্যায়ে ৪ তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। দুপুর ১ টায় মুন্সীবাজার ইউনিয়নের ইউনিয়ন আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবন মাধ্যমিক ও উচ্চ শিা অধিদপ্তর (মাউশি) এর অর্থায়নে ৮৮ ল ৩২ হাজার টাকা ব্যায়ে ৪ তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। দুপুর ২টায় মাধ্যমিক ও উচ্চ শিা অধিদপ্তর (মাউশি) এর অর্থায়নে ১ কোটি ২৪ হাজার টাকা ব্যায়ে ২তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট মুন্সীবাজার কালী প্রসাদ উচ্চ বিদ্যালয়ে একাডেমিক ভবনের উর্দ্ধমূখী সম্প্রসারণে কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন। বিকাল ৩টায় ২ কোটি ৮৮ ল টাকা ব্যায়ে অভয়বচন উচ্চ বিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবনের ভিত্তি স্থাপন ও  চাহিদাভিত্তিক নতুন জাতীয় করণকৃত সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় অবকাঠামো উন্নয়ন (১ম পর্যায়) প্রকল্পের আওতায় ৬৩ ল ৫৬ হাজার ৮৯৬ টাকা ব্যায়ে বড়চেগ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শ্রেণীক নির্মান কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করেন।

Kamalgonj Pic 2
অন্যদিকে বিকালে ৪৯ লক্ষ ব্যায়ে চৈত্রঘাট-জগন্নাথপুর পাকা রাস্তার শুভ উদ্বোধন করেন। এছাড়াও কালাছাড়া হালিমা খাতুন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবন নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন শেষে সন্ধ্যায় ৪ কোটি ১৮ লক্ষ ৬ হাজার টাকা ব্যায়ে কালাছড়া, জসমতপুর, সিদ্ধেশ্বরপুর (আশিংক), ধর্মপুর (আশিংক) গ্রামে ৮৬১ পরিবারের মধ্যে  বিদ্যুতায়নের শুভ উদ্বোধন করেন। গত ৩০ অক্টোবর মঙ্গলবার মৌলভীবাজার শিা প্রকৌশল অধিদপ্তর এর বাস্তবায়নে ৪ তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট ৫৭ ল টাকা ব্যায়ে সফাত আলী সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার আলহাজ্ব উপাধ্য ড. মো: আব্দুস শহীদ (এমপি) একাডেমিক ভবন এর শুভ উদ্বোধন করেন।

45132890_1324941574350919_6143789221862703104_n
এসময় উপস্থিত ছিলেন মৌলভীবাজারের শিা প্রকৌশলী আরিফুল ইসলাম খান, কমলগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মো: জুয়েল আহমদ, ১নং রহিমপুর ইউপি (স্বর্ণপদকপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যান ইফতেখার আহমেদ বদরুল, মুন্সীবাজার ইউপি চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মোতালিব তরফদার, উপজেলার বিআরডিবি চেয়ারম্যান ইমতিয়াজ আহমেদ বুলবুল,  উপজেলার প্রকৌশলী মো. জাহিদুর ইসলাম, উপজেলা শিা অফিসার মো. মোশারফ হোসেন, কমলগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ মো. আরিফুর রহমান, রহিমপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ এর সহ সভাপতি মোস্তাক আহমেদ খোকন, সাধারন সম্পাদক দীপক কান্তি রায়, শমশেরনগর ইউপি সদস্য শেখ রায়হান ফারুক, স্থানীয় আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলী, বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটি, শিক, শিার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণীপেশার নেতৃবৃন্দ।

কমলকুঁড়ি ৩১ অক্টোবর ২০১৮

1-4

2-3

কমলগঞ্জে সফাত আলী সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার নতুন ভবন উদ্বোধন

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

Kamalgonj Pic--6
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার  সফাত আলী সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার উপাধ্যক্ষ ড. মো: আব্দুস শহীদ এমপি একাডেমিক ভবনের শুভ উদ্বোধন করা হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল ১১ টায় ৫৭ লক্ষ টাকা ব্যায়ে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর, মৌলভীবাজার এর বাস্তবায়নে ৪ তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট ভবনটির শুভ উদ্বোধন করেন সাবেক চিফ হুইপ, সরকারি প্রতিশ্রুতি সম্পর্কিত কমিটির সভাপতি উপাধ্যক্ষ ড. মো: আব্দুস শহীদ এমপি। এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কমলগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মো. জুয়েল আহমেদ, উপজেলা বিআরডিবি চেয়ারম্যান ইমতিয়াজ আহমেদ বুলবুল, সফাত আলী সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ গোলাম মোস্তফা, কমলগঞ্জ সদর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল হান্নান প্রমুখ।

কমলগঞ্জে সমতলে বসবাসরত ক্ষুদ্র নারী নৃ-গোষ্ঠী শিক্ষার্থীদের মধ্যে বাইসাইকেল বিতরণ

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

Kamalgonj Pic--5
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে সমতলে বসবাসরত ক্ষুদ্র নারী নৃ-গোষ্ঠী শিক্ষার্থীদের মধ্যে বাইসাইকেল বিতরণ করা হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুর ১টায় কমলগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ মাহমুদুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক চিফ হুইপ, সরকারি প্রতিশ্রুতি সম্পর্কিত কমিটির সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা উপাধ্যক্ষ ড. মো: আব্দুস শহীদ এমপি। এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কমলগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আরিফুর রহমান, কমলগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মো. জুয়েল আহমেদ, কমলগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এম, মোছাদ্দেক আহমেদ মানিক, সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক হারুন অর রশীদ ভূঁইয়া, কমলগঞ্জ সদর ইউপি চেয়ারম্যান মো: আব্দুল হান্নান প্রমুখ। অনুষ্ঠানে সমতলে বসবাসরত ৫০ জন ক্ষুদ্র নারী নৃ-গোষ্ঠী শিক্ষার্থীদের মধ্যে বাইসাইকেল বিতরণ করা হয়।

কমলগঞ্জে ‘সৃজনে উন্নয়নে বাংলাদেশ’ শীর্ষক উৎসব

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

Kamalgonj Pic--2
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে ‘সৃজনে উন্নয়নে বাংলাদেশ’ শীর্ষক উৎসবে অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ১০টি বিশেষ উদ্যোগের সাফল্য, জনপ্রিয়তা ও গুরুত্ব সম্পর্কে সর্বসাধারণকে অবহিত করার লক্ষ্যে এই উৎসবের আয়োজন করা হয়। দিনভর উৎসবের মধ্যে ছিল র‌্যালি, আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও মেলা।
উৎসব উপলক্ষে মঙ্গলবার দুপুর ১টায় সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয় ও কমলগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণ থেকে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি উপজেলা সদরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। পরে জেলা পরিষদ মাল্টিপারপাস অডিটরিয়ামে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক চিফ হুইপ, সরকারি প্রতিশ্রুতি সম্পর্কিত কমিটির সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা উপাধ্যক্ষ ড. মো: আব্দুস শহীদ এমপি।
কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ মাহমুদুল হকের সভাপতিত্বে ও প্রধান শিক্ষক মোশাহীদ আলীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন কমলগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এম, মোছাদ্দেক আহমেদ মানিক, কমলগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মো. জুয়েল আহমেদ, কমলগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আরিফুর রহমান, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক হারুন অর রশীদ ভূঁইয়া, কমলগঞ্জ সদর ইউপি চেয়ারম্যান মো: আব্দুল হান্নান, উপজেলা সমাজসেবা অফিসার বাদশা ফয়ছল, উপজেলা কৃষি অফিসার রঘুনাথ নাহা,  উপজেলা বিআরডিবি চেয়ারম্যান ইমতিয়াজ আহমেদ বুলবুল। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কমলগঞ্জ প্রেসক্লাব সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক আব্দুল মালিক বাবুল, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মো: সানোয়ার হোসেন প্রমুখ।
এরপর সাবেক চিফ হুইপ, সরকারি প্রতিশ্রুতি সম্পর্কিত কমিটির সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা উপাধ্যক্ষ ড. মো: আব্দুস শহীদ এমপি ‘প্রয়াস কমলগঞ্জ’ শিক্ষা সহায়ক তহবিল উদ্বোধন, ৩৮৩ জন কৃষকের মাঝে ‘কৃষি প্রণোাদনা’ হিসেবে ধান, সরিষা, ভুট্টা বীজ বিতরণ এবং ১১৩৪ জন সুবিধাভোগীর মাঝে বয়স্ক, বিধবা ও প্রতিবন্ধি ভাতার বই বিতরণ করেন।

লাউয়াছড়া পাহাড়ি এলাকায় স্টিল সেতু ভেঙ্গে সড়ক যোগাযোগ বন্ধ

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

Kamalgonj Pic--1
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল সড়কে বৈদ্যুতিক খুঁটিবাহী একটি ট্রাক পারাপারের সময় লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যানের পাহাড়ি এলাকায় বিকল্প পথের একটি স্টিল সেতুর পাটাতন ভেঙ্গে মঙ্গলবার (৩০ অক্টোবর) ভোর রাত থেকে  সড়ক যোগাযোগ বন্ধ রয়েছে। দ্রুত বৈদ্যুতিক খুঁটি নামিয়ে ট্রাকটি স্টিল সেতু থেকে নামালেও স্টিল সেতু মেরামত কাজ চলার কারণে মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৪ পর্যন্ত কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে।
সড়ক ও জনপথ বিভাগ সূত্রে জানা যায়, লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যানের ভিতরে জানকীছড়া এলাকায় পুরাতন একটি ঝরাজীর্ণ কালভার্ট ভেঙ্গে সেখানে একটি নতুন কালভার্ট নির্মাণের কাজ চলছিল। এ পথে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক রাখতে ঝরাজীর্ণ কালভার্টের উপর একটি স্টিল সেতু স্থাপন করা হয়েছিল। মঙ্গলবার ভোর রাতে ১৫টি বৈদ্যুতিক পাকা খুঁটিবাহী একটি ট্রাক  বিকল্প স্টিল সেতু পারাপারের সময় সেতুর পাটাতন ভেঙ্গে যায়। এর পর থেকে কমলগঞ্জের সাথে শ্রীমঙ্গলের সড়ক সরাসরি সড়ক যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যায়। মঙ্গলবার সকাল থেকে নুরজাহান-মাধবপুর চা বাগান হয়ে যানবাহন চলাচল করছে।
মঙ্গলবার সকালে ট্রাকের উপর থেকে বৈদ্যুতিক খুঁটি নামিয়ে ট্রাকটি স্টিল সেতুর উপর থেকে নামানো হয়। এর পর থেকে সড়ক জনপথ বিভাগের কর্মীরা ভেঙ্গে পড়া সিটল সেতুর পাটাতন মেরামত কাজ শুরু করেন। ঘটনাস্থলে কাজ তদারকির দায়িত্বে থাকা সড়ক ও জনপথ বিভাগের কর্ম সহায়ক কর্তা দেবাশীষ দে জানান, স্টিল সেতুর পাটাতল ওয়েল্ডিং করার কাজ চলছে। মেরামত কাজ শেষ হবে কিছুটার সময় লাগবে। পাটাতন লাগানোর পর যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক হবে। তবে স্টিল সেতুর উপর দিয়ে বেশী ভারী যানবাহন চলাচল করাটা ঝুঁকিপূর্ণ হবেও বলে তিনি শঙ্কা প্রকাশ করেন।
এ অবস্থায় মাধবপুর-নুরজাহান চা বাগান হয়ে কমলগঞ্জ- শ্রীমঙ্গল পথের যানবাহন চলাচল করছে। বাস চালক আলী আজম, সিএনজি অটোরিক্সা চালক মনির মিয়া, শুকুর মিয়া, আইয়ূব আলী বলেন, তারাও বাধ্য হয়ে এখন কিছুটা ঘুরে শ্রীমঙ্গল যাতায়াত করছেন্
সড়ক ও জনপথ বিভাগের মৌলভীবাজারের নির্বাহী প্রকৌশলী শেখ সোহেল আহমদ কমলগঞ্জ-শ্রীমঙ্গল পথে পাহাড়ি এলাকায় বিকল্প একটি স্টিল সেতুর পাটাতন ভেঙ্গে সড়ক যোগাযোগ বন্ধ থাকার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তিনি আরও বলেন, সড়ক জনপথেল লোকজন  ভেঙ্গে পড়া স্টিল সেতু মেরামত করছেন। তিনি আশাবাদী সন্ধ্যার আগেই এই পথে আবার সরাসরি সড়ক যোগাযোগ স্বাভাবিক হবে।

কমলগঞ্জে কৃষকলীগের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

Pic-1
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে ১নং রহিমপুর ও ৩নং মুন্সীবাজার ইউনিয়ন কৃষকলীগের কমিটির গঠন উপলক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। মঙ্গলবার (৩০ অক্টোবর) সন্ধ্যায় মুন্সীবাজার কালী প্রসাদ উচ্চ বিদ্যালয়ের হলরুমে উপজেলা কৃষকলীগের যুগ্ম আহবায়ক রাসেল আহমদ মতলিবের সভাপতিত্বে ও উপজেলা কৃষকলীগের যুগ্ম আহবায়ক ও রহিমপুর ইউনিয়নের আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হামিদুল হক চৌধুরী বাবরের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মৌলভীবাজার জেলা কৃষকলীগের সভাপতি মো: জমসেদ মিয়া। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন আহমেদ চৌধুুরী, ১নং রহিমপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি জুনেল আহমেদ তরফদার, ৩নং মুন্সীবাজার ইউনিয়ন আওয়ামীলীগৈর সভাপতি ইকবাল হোসেন চৌধুরী, জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি আক্তার উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক মাহবুব আলী, উপজেলা আওয়ামীলীগ সদস্য কালীপদ দেব, উপজেলা যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো: মোশাহিদ আলী, উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মুহিদুল ইসলাম ছুন্নাহ, উপজেলা কৃষকলীগের সদস্য আব্দুল কাইয়ূম ও নিখিল মালাকার প্রমুখ।
আলোচনা সভা শেষে মো: হায়দর আলীকে আহবায়ক করে ২১ সদস্য বিশিষ্ট ১নং রহিমপুর ইউনিয়ন কৃষকলীগ ও আব্দুল মনাফকে আহবায়ক ২১ সদস্য বিশিষ্ট ৩নং মুন্সীবাজার ইউনিয়ন কৃষকলীগ কমিটি গঠন করা হয়।

কমলগঞ্জবাসী শেয়ার/পোস্ট করে সংশোধনের দাবী তুলুন ৪৭ বছরেও যে ভুলের সমাধান হয়নি

শাহীন আহমেদ

  10

২৮ অক্টোবর ২০১৮ খ্রিঃ বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী হামিদুর রহমানের ৪৭ তম শাহাদত বার্ষিকী। ১৯৭১ সালের ২৮ অক্টোবর ভোর রাতে ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের কমলপুর সাব সেক্টর থেকে মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার মাধবপুর ইউনিয়নের ধলই সীমান্ত চৌকিতে প্রবেশ করে পাক হানাদার বাহিনীর সাথে সম্মুখ যুদ্ধে শহীদ হন তিনি। স্বাধীন বাংলার জন্য তাঁর সর্বোচ্চ ত্যাগ নিজের জীবন বিলিয়ে দেওয়ায় বাঙ্গালী তাঁকে বীরশ্রেষ্ঠ উপাধিতে ভূষিত করে। কিন্তু স্বাধীন দেশের মাটিতে রচিত পাঠ্য পুস্তকে আজও তার শেষ রনাঙ্গন নিয়ে সমাধান হয়নি তথ্য বিভ্রাটের। এ কারনে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা জানছে ভুল ইতিহাস।
ঝিনাইদহ জেলার মহেশপুর উপজেলার খোরদা খালিশপুর গ্রামের সন্তান সিপাহী হামিদুর রহমান। স্বাধীনতা পরবর্তীকালে যে ৭ জন মুক্তিযোদ্ধাকে বীরশ্রেষ্ঠ উপাধিতে ভূষিত করা হয় সিপাহী হামিদুর রহমান তাদের একজন। কিন্তু ৪৭ তম বিজয় দিবসের প্রাক্কালেও তার শেষ রক্ত ঝরা কমলগঞ্জের ধলই সীমান্ত চৌকির কথা যথাযথ ভাবে পাঠ্যপুস্তকে স্থান না পাওয়া, সরকারী বিভিন্ন প্রচার মাধ্যমে কমলগঞ্জের ধলই সীমান্তকে শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার, সিলেটের ধলই বলে প্রচার করায় ক্ষোভের কমতি নেই কমলগঞ্জবাসীর। স্বাধীনতা পরবর্তী দীর্ঘ সময় পর ১৯৯২ সালে বাংলাদেশ সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর উদ্যোগে সর্বপ্রথম কমলগঞ্জ উপজেলার ধলই সীমান্ত চৌকির পাশে নির্মাণ করা হয় বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমানের স্মৃতিফলক। ২০০৬ সালে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে ১০ শতাংশ জায়গার উপর সাড়ে ১৪ লক্ষ টাকা ব্যয়ে গণপূর্ত বিভাগ বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী হামিদুর রহমান স্মরণে স্মৃতিস্তম্ব নির্মাণ করে। সাথে সাথে কমলগঞ্জের ভানুগাছ-মাধবপুর সড়কটিকে বীরশ্রেষ্ঠ সিপাহী হামিদুর রহমানের নামে নামকরণ করা হয়। অথচ জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ড অনুমোদিত চতুর্থ শ্রেণীর ‘আমার বাংলা বই’ এর ৭১নং পৃষ্ঠায় রচিত “বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান” পাঠের প্রথম অংশে উল্লেখ করা হয় “সিলেটের সীমান্ত এলাকা। শ্রীমঙ্গল থেকে ১০ মাইল দক্ষিনে ধলই সীমান্ত ঘাটি”। যাহা তথ্যগত ভাবে সম্পূর্ণ ভূল। বাস্তবে এই ধলই সীমান্ত কমলগঞ্জ উপজেলা সদর থেকে ১০ কিলোমিটার দক্ষিনে অবস্থিত। আগষ্ট ২০১২ থেকে নতুন করে প্রকাশিত চতুর্থ শ্রেনীর বাংলা বইয়ে ‘‘বীরশ্রেষ্ঠর বীরগাথা’’ পাঠে শ্রীমঙ্গল থানার ধলাই সীমান্ত ফাঁড়ি হিসেবে উল্লেখ করা হয়। তথ্যগত এই ভুল সংশোধন হয়নি ৪৭ বছরেও। বিষয়টি নিয়ে একাধিক বার বিভিন্ন সভা, সেমিনারে কথা বলা হয়, এমনকি বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত আবেদনও করা হয়। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই হচ্ছে না।

কমলগঞ্জে বাড়ির আম গাছে গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ, স্বামী পলাতক ॥ থানায় মামলা- শ্বাশুড়ি আটক

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

2
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী কাঁঠালকান্দি গ্রামে বাড়ির আম গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় তামান্না আক্তার (২০) নামের এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধারের পর এ ঘটনায় নিহত গৃহবধূর বড় ভাই রকিবুল ইসলাম বাদি হয়ে কমলগঞ্জ থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। গত রোববার রাতে পুলিশ সৎ শ্বাশুড়িকে আটক করেছে। নিহত গৃহবধূ কাঁঠালকান্দি গ্রামের মো. আছদ আলীর ছেলে মো. আব্দুল হামিদ (২৪)-এর স্ত্রী। ঘটনার পর থেকে স্বামী আব্দুল হামিদ পলাতক রয়েছে।
খোঁজ নিয়ে জানা যায়, দুই বছর আগে মৌলভীবাজার সদর উপজেলার মোস্তফাপুর গ্রামের আশিক মিয়ার ৪র্থ মেয়ে তামান্না আক্তারের বিয়ে হয়েছিল কমলগঞ্জ উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী কাঁঠালকান্দি গ্রামের  মো. আছদ আলীর ছেলে মো. আব্দুল হামিদ (২৪)-এর সাথে। বিয়ের পর থেকে তাদের দাম্পত্য বিরোধ চলছিল। গৃহবধূর বড় ভাই মামলার বাদি রকিবুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন, বিয়ের পর থেকেই স্বামী ও শ্বাশুড়ি  বিভিন্ন অজুহাত দেখিয়ে তার কাছে টাকা দাবি করেন। তামান্নার সুখের কথা ভেবে মাঝে মাঝে কিছু টাকাও প্রদান করেছেন।  কিছু দিন আগে ঘর নির্মাণে সহায়তা হিসেবে নগদ ১০ হাজার টাকা প্রদানও করা হয়েছে। তার পরও স্বামী হামিদ ও সৎ শ্বাশুড়ি লুৎফা বেগম তামান্নার উপর মানসিক ও শারীরিক নির্যাতন চালায়।
গত শনিবার (২৭ অক্টোবর) রাতে স্বামী ও সৎ শ্বাশুড়ির সাথে তামান্নার তর্কবিতর্ক হয়েছিল। তর্কবিতর্কের এক পর্যায়ে স্বামী ও শ্বাশুড়ি মিলে গৃহবধূ তামান্নাকে মারধর করেছিল। রোববার সকালে বাড়ির দক্ষিণ দিকের একটি আম গাছের ডালে গলায় ওড়না পেচানো অবস্থায় তামান্নার লাশ পাওয়া যায়। ঘটনার পর থেকে স্বামী আব্দুল হামিদ পলাতক রয়েছে। রোববার দুপুর পর্যন্ত তামান্নার লাশ আম গাছের ডালে ঝুলে থাকলেও তার স্বামী ও তার পরিবারের পক্ষ থেকে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি এমনকি পুলিশকে অবহিত করা হয়নি। গ্রামবাসীর মাধ্যমে খবর পেয়ে বিষয়টি কমলগঞ্জ থানাকে অবহিত করলে উপ-পরিদর্শক সুরুজ আলীর নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল কাঁঠালকান্দি গ্রাম থেকে রোববার বিকাল সাড়ে ৩টায় তার লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করে। গৃহবধূর বড় ভাই রকিবুল মনে করেন রাতে ঘরের মধ্যে হত্যা করেই পরে সকালে গাছের ডালে ঝুলিয়ে গঠনাটি আত্মহত্যা বলে চালানোর চেষ্টা করা হয়।
এটি একটি পরিকল্পিত হত্যাকান্ড দাবি করে রকিবুল স্বামী আব্দুল হামিদ ও সৎ শ্বাশুড়ির নাম উল্লেখ করে রোববার রাতেই কমলগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। লিখিত অভিযোগটিকে মামলা হিসেবে গ্রহনের পর পুলিশ সৎ শ্বাশুড়ি লুৎফা বেগমকে আটক করেছে।
নিহত গৃহবধূর বাবা আশিক মিয়া বলেন, তার মেয়ে খুব সহজ সরল প্রকৃতির ছিল। মেয়ে আত্মহত্যা করবে বলে তিনি বিশ্বাস করেন না। আত্মহত্যার বিষয়টি সাজানো নাটক উল্লেখ করে তিনি বলেন, তা হলে ঘটনার পর থেকে স্বামী পলাতক কেন ? রোববার দুপুর পর্যন্ত জনপ্রতিনিধি ও পুলিশকে জানানো হয়নি কেন ? জোর তদন্তক্রমে এ ঘটনার সঠিক রহস্য উদঘাটনের দাবিও জানান।
কমলগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আরিফুর রহমান লাশ উদ্ধার ও মামলার ২ নম্বর আসামী সৎ শ্বাশুড়িকে আটকের সত্যতা নিশ্চিত করেন। ময়না তদন্ত প্রতিবেদন পেলে বোঝা যাবে এটি আত্মহত্যা না হত্যাকান্ড।

পরিবহন শ্রমিকদের কর্মবিরতির ২য় দিনেও কমলগঞ্জে চরম জনদুর্ভোগ : চাতলাপুর স্থল শুল্ক স্টেশনে আমদানি রপ্তানি বন্ধ ॥ সংবাদপত্রের গাড়ি চলাচলেও বাঁধা

কমলকুঁড়ি রিপোর্ট

Kamalgonj Pic 2
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে পরিবহন শ্রমিকদের কর্মবিরতির ২য় দিনেও পরিবহন ধর্মঘটের কারণে চরম দুর্ভোগে পড়েন শিক্ষার্থী, চাকুরীজীবিসহ সাধারণ মানুষকে। এদিকে কুলাউড়া উপজেলার চাতলাপুর স্থল শুল্ক স্টেশনে দ্বিতীয় দিনের মত আমদানি রপ্তানি বন্ধ ছিল। সোমবার সকালে সংবাদপত্র আনতে শ্রীমঙ্গলে যাওয়া কমলগঞ্জের সিএনজি অটোরিক্সাগুলোকে শ্রীমঙ্গলে প্রবেশকালে আটকিয়ে রাখে পরিবহন শ্রমিকরা। পরে শ্রীমঙ্গলের গণমাধ্যম কর্মীদের সহযোগিতায় কমলগঞ্জের সংবাদপত্রবাহী সিএনজি অটোরিক্সাগুলোকে ছেড়ে দেওয়া হয়। পরিবহন ধর্মঘটের কারণে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে উপস্থিতির হার ছিল কম। ধর্মঘট চলাকালে কমলগঞ্জর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ধর্মঘটের আওতামুক্ত যানবাহনগুলোকেও পরিবহন শ্রমিকরা চলাচলে বাঁধা প্রদান করে।
Kamalgonj Pic 3চাতলাপুর স্থল শুল্ক স্টেশনের আমদানি রপ্তানিকারক সাইফুর রহমান ও তাসদিক হোসেন জানান ভারতীয় অংশে তাদের প্রচুর আপেল পড়ে রয়েছে। পরিবহন ধর্মঘটের কারণে কোন ট্রাকই শুল্ক স্টেশনে আসতে পারছে না। ফলে দুই দিন ধরে এ স্টেশনে আমদানি রপ্তানি কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে।
চাতলাপুর স্থল শুল্ক স্টেশনের পরিদর্শক মো. হায়াৎ মাহমুদ বলেন, ধর্মঘটের কারণে ঝুঁকি নিয়ে কোন ট্রাক ও কভার্ড ভ্যান আসতে পারছে না। ফলে গত ২ দিন ধরে আমদানি রপ্তানি বন্ধ রয়েছে। কমলগঞ্জের শমশেরনগর বিএএফ শাহীন কলেজ সূত্রে জানা যায়, পরিবহন ধর্মঘটের কারণে দূরবর্তী কোন স্থানের শিক্ষার্থী কলেজে আসতে পারেনি। এছাড়াও পর্যাপ্ত রিক্সা চলাচল করতে না পারায় স্থানীয় অনেক শিক্ষার্থীর কলেজে যেতে পারেনি। কমলগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছাত্র উপস্থিতি ছিল খুবই কম। ধর্মঘটের কারণে ১০ টাকার রিক্সা ভাড়া হয়ে যায় ৫০ টাকা।